বিকালে ঢাকায় গ্রেফতার, রাতে গোয়ালন্দে ‘বন্দুকযুদ্ধে’ নিহত

0
205

মিরর বাংলা নিউজ  ডেস্ক: রাজবাড়ী জেলার গোয়ালন্দ উপজেলায় পুলিশের সঙ্গে বন্দুকযুদ্ধে কদম আলী ওরফে করম (৩৬) নামে এক চরমপন্থী নেতা নিহত হয়েছে বলে দাবি করা হয়েছে। পুলিশ জানিয়েছে, করমের বিরুদ্ধে তিনটি হত্যা, একটি অস্ত্র ও একটি মাদক মামলা রয়েছে। ঘটনাস্থল থেকে একটি একনালা বন্দুক ও ওয়ান শুটারগান উদ্ধার করা হয়েছে।

বুধবার (৭ জুন) দিনগত রাত সাড়ে ৩টার দিকে গোয়ালন্দ উপজেলার ছোট ভাকলা ইউনিয়নের চর দোলন্দী গ্রামে এ বন্দুকযুদ্ধের ঘটনা ঘটে। নিহত করম গোয়ালন্দ উপজেলার দেবগ্রাম ইউনিয়নের তেনাপঁচা গ্রামের মৃত কুব্বাত হোসেনের ছেলে।

রাজবাড়ী ডিবি পুলিশের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) ওবাইদুর রহমান জানান, নিহত করম নিষিদ্ধ ঘোষিত চরমপন্থী সংগঠন লাল পতাকা বাহিনীর রাজবাড়ী অঞ্চলের কমান্ডার। বুধবার বিকালে তাকে ঢাকার হেমায়েতপুর থেকে আটক করা হয়। এরপর তাকে গোয়ালন্দঘাট থানায় এনে ব্যাপক জিজ্ঞাসাবাদ করা হয়। সে জানায়, ছোট ভাকলা ইউনিয়নের চর দোলন্দী গ্রামের আমজাদ হোসেনের পরিত্যাক্ত ভিটায় তার অবৈধ আগ্নেয়াস্ত্র লুকানো রয়েছে।

পরে রাত সাড়ে ৩টার দিকে গোয়ালন্দঘাট থানার পুলিশের সহযোগিতায় তাকে নিয়ে ওই ভিটায় অস্ত্র উদ্ধার অভিযানে যাওয়া হয়। এ সময় আগে থেকে ওঁৎ পেতে থাকা করমের দলের অন্যান্য সদস্যরা পুলিশকে লক্ষ্য করে গুলি ছোড়ে। আত্মরক্ষার্থে পুলিশও পাল্টা গুলি ছোড়ে। এক পর্যায়ে করম গুলিবিদ্ধ হয়ে ঘটনাস্থলেই মারা যায়।

তিনি আরও জানান, করমের বিরুদ্ধে তিনটি হত্যা, একটি অস্ত্র ও একটি মাদক মামলা রয়েছে। মৃতদেহ উদ্ধার করে সুরতহাল রিপোর্ট শেষে ময়নাতদন্তের জন্য রাজবাড়ী সদর হাসপতাল মর্গে পাঠানো হয়েছে।

সূত্র: বাঙলা ট্রিবিউন

NO COMMENTS

LEAVE A REPLY