মন্দিরে ভয়াবহ অগ্নিকাণ্ডে অন্তত ১০২ জন নিহত

0
138

মিররবাংলা নিউজ  ডেস্ক:

ভারতের কেরালা রাজ্যের একটি মন্দিরে ভয়াবহ অগ্নিকাণ্ডে অন্তত ১০২ জন নিহত হয়েছেন। এ ঘটনায় কমপক্ষে সাড়ে তিনশো মানুষ আহত হয়েছেন। ধারণা করা হচ্ছে আতশবাজি থেকে ওই অগ্নিকাণ্ডের সূত্রপাত।

দক্ষিণাঞ্চলীয় রাজ্য কেরালার রাজধানী থিরুভানান্তাপুরমের ৬০ কিলোমিটার দূরবর্তী কোল্লাম জেলার পারাভর পুত্তিঙ্গাল দেবী মন্দিরে রবিবার ভোরে একটি ধর্মীয় উৎসবের আতশবাজি থেকে এ অগ্নিকাণ্ডের ঘটনা ঘটেছে বলে পুলিশ জানিয়েছে। অগ্নিকাণ্ডের সময় মন্দিরে প্রায় এক হাজার পূণ্যার্থী উপস্থিত ছিলেন। দমকল কর্মীরা কয়েক ঘন্টার চেষ্টায় আগুন নিয়ন্ত্রণ আনতে সক্ষম হয়েছেন।

আহত ব্যক্তিদের উদ্ধার করে স্থানীয় হাসপাতালে নেওয়া হয়েছে। আহতদের মধ্যে অনেকের অবস্থা আশঙ্কাজনক বলে হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ জানিয়েছে। নিহতের সংখ্যা আরও বাড়তে পারে বলে আশঙ্কা করা হচ্ছে।

পুলিশের উর্ধ্বতন কর্মকর্তারা ইতিমধ্যে ঘটনাস্থলে রয়েছেন। কেরালার মুখ্যমন্ত্রী উম্মেন চণ্ডি দিনের অন্যান্য কার্যক্রম স্থগিত রেখেছেন। তিনি ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছেন। ধারণা করা হচ্ছে তিনি একটি তদন্তের আদেশ দেবেন। বিরোধীদলীয় নেতা ভি এস অচ্ছিতানন্দনও নির্বাচনী প্রচারণা বন্ধ রেখে কোল্লাম পৌঁছেছেন।

প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি প্রত্যেক নিহতের পরিবারকে ২ লাখ রুপি এবং আহতদের চিকিৎসার জন্য ৫০ হাজার রুপি করে দেওয়ার ঘোষণা দিয়েছেন।

এর আগে রাজ্যের গৃহমন্ত্রী রমেশ চেন্নিলাল জানিয়েছেন, রবিবার ভোর সাড়ে তিনটার দিকে ওই ভয়াবহ অগ্নিকাণ্ডের ঘটনা ঘটে। তিনি জানান, হতাহতদের যথাযথ ক্ষতিপূরণ দেওয়া হবে এবং ওই ঘটনার কারণ অনুসন্ধানে একটি বিচার বিভাগীয় তদন্ত কমিটি গঠনের ঘোষণা দেওয়া হবে।

ইতিমধ্যে আতশবাজি সরবরাহকারী সুরেন্দ্রনের বাসায় অভিযান চালিয়েছে পুলিশ তবে তাকে আটক করা সম্ভব হয়নি বলে পুলিস জানিয়েছে।

সূত্র: দ্য হিন্দু, টাইমস অব ইন্ডিয়া

NO COMMENTS

LEAVE A REPLY